সবাই বের হয়ে গেলেও পুড়ে যান ঘুমন্ত বৃদ্ধা

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি;
  • প্রকাশিত: ১ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৫৮ অপরাহ্ণ | আপডেট: ২ সপ্তাহ আগে

বসতঘরে অগ্নিকাণ্ডে ঘুমন্ত অবস্থায় দগ্ধ হয়ে এক বৃদ্ধার মৃত্যু হয়েছে। বসতঘরে আগুন লাগার পর পরিবারের ছয় সদস্যের পাঁচজন ঘর থেকে বের হতে পারলেও বৃদ্ধা নূরজাহান বেগম বের হতে পারেননি। ঘটনাটি ঘটেছে মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলায়।

সোমবার (১ এপ্রিল) ভোরে উপজেলার পূর্ব কদমহাটায় প্রবাসী মিন্টু মিয়ার বাড়ির কেয়ার টেকার ময়না মিয়ার বসতঘরে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ভোরে ময়না মিয়ার পরিবারের সবাই সেহেরি খেয়ে ঘুমানোর পর বসতঘরে আগুন লাগে। এসময় প্রাণে বাঁচতে পরিবারের সবাই ঘরের বাইরে চলে আসলে অসুস্থ নূরজাহান বেগম ঘর থেকে বেরিয়ে আসতে পারেননি। তিনি ঘরের ভেতরেই দগ্ধ হয়ে মারা যান। তাদের গ্রামের বাড়ি কুমিল্লায়। ৬ সদস্যদের পরিবার নিয়ে প্রবাসীর একটি টিনশেড বাড়িতে থাকতেন বৃদ্ধা নূরজাহান বেগম।

এদিকে এ ঘটনার পর প্রতিবেশীরা ফায়ার সার্ভিসে কল দিলে তারা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় ঘরের ভেতর থেকে নূরজাহান বেগমের লাশ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধারকর্মীরা।

মৌলভীবাজারের ফায়ার সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক মো. আলাউদ্দিন জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, কয়েল কিংবা সিলিন্ডারের গ্যাস বা বিদ্যুৎ থেকে আগুন লাগতে পারে।

রাজনগর থানার ওসি আব্দুস ছালেক বলেন, অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে সঙ্গে সঙ্গেই পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আমরা জেনেছি, নিহত নারী প্যারালাইজডে আক্রান্ত ছিলেন। যে কারণে আগুন লাগার পর তড়িঘড়ির মধ্যে তিনি বের হতে পারেননি। ফলে, দগ্ধ হয়ে ভেতরেই মারা যান তিনি।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...

পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরি