অর্থাভাবে আটকে আছে এমসি কলেজ ছাত্রী অনন্যার চিকিৎসা

এম.সি কলেজ প্রতিনিধি;
  • প্রকাশিত: ১৭ আগস্ট ২০২০, ১০:৪৪ পূর্বাহ্ণ | আপডেট: ৯ মাস আগে

সড়ক দুর্ঘটনায় আহত সিলেটের মুরারিচাঁদ (এমসি) কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থী অনন্যা দে আঁখির জন্য প্রধানমন্ত্রী বরাবর আবেদন পাঠানোর ১৫ দিন পেরিয়ে গেলেও এখনো কোনো সহযোগিতা মিলে নি।

গত ৫ জানুয়ারি পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী (মৌলভীবাজার-১) আসনের সাংসদ শাহাব উদ্দিনের কাছে এসংক্রান্ত আবেদনের ফাইল হস্তান্তর করেন বড়লেখা ছাত্রকল্যাণ সংঘ সিলেট এর সাধারণ সম্পাদক কামরুল ইসলাম বাবু।

এসময় মন্ত্রী নিজেই প্রধানমন্ত্রীর কাছে ফাইল পৌঁছানোসহ অনন্যার ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীর সাথে কথা বলার আশ্বাস দেন। মন্ত্রীর দেওয়া আশ্বাসের অনেকগুলো দিন পেরিয়ে গেলেও কার্যকর কোনো ফল না আসায় আশাহত হচ্ছেন অনন্যার পরিবারসহ সংশ্লিষ্ট সকলেই।

আবেদন প্রসঙ্গে অনন্যার বাবা অরুণ কান্তি দের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ হলে তিনি বলেন, “মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমার আবেদনটি মাননীয় পরিবেশ মন্ত্রীর মাধ্যমে প্রেরণ করেছি। মন্ত্রী আমাকে আশ্বস্থ করেছেন, আর সেই আশ্বাসের উপর বিশ্বাস রেখেই অপেক্ষায় আছি।

ফাইল হস্তান্তর বিষয়ে জিজ্ঞেস করলে কামরুল ইসলাম বাবু বলেন, আমরা আমাদের সংগঠনের পক্ষ থেকে প্রথমে বিবৃতি দিয়ে জানালেও পরে আমাদের স্থানীয় সাংসদ ও পরিবেশ মন্ত্রীর ইতিবাচক আশ্বাস পেয়ে অনন্যার বাবার করা আবেদনপত্র সহ আমাদের লিখিত আবেদনের ফাইলগুলো মাননীয় মন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর করি।

এসময় তিনি নিজেই প্রধানমন্ত্রীর নিকট আবেদন পৌঁছিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান। কিন্তু মন্ত্রীর দেওয়া আশ্বাসের পনের দিন পেরিয়ে গেলেও এখনো কোনো কার্যকর ফল আসেনি।তবে আমরা আশাবাদী।

এদিকে গত ২৪ জানুয়ারী থেকে এপর্যন্ত ২০ লাখের মত চিকিৎসা ব্যয় হয়েছে বলে জানায় অনন্যার পরিবার।

চিকিৎসকদের মতে, অনন্যার অবস্থা দিন দিন উন্নতির দিকে আগাচ্ছে, তবে পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠতে আরো অন্তত ৬ মাস সময় লাগবে। যেজন্য তার চিকিৎসা ব্যয় আরো ১৫ থেকে ২০ লাখ টাকা লাগতে পারে। যেটি তার পরিবারের জন্য অসাধ্য।

এদিকে মেধাবী এই শিক্ষার্থীর চিকিৎসার জন্য এখন ও পর্যন্ত কলেজ প্রশাসন থেকে ভালো কোনো সহযোগিতা না করায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে অনন্যার সহপাঠীসহ কলেজের শিক্ষার্থীরা।

যেখানে দেশবিদেশের অনেকেই তাকে সাহায্য করছেন। কিন্তু তা প্রয়োজনের তুলনায় অতি নগণ্য । বড় ধরনের সহায়তা না পেলে অনন্যার চিকিৎসা বন্ধ হয়ে যেতে পারে।

উল্লেখ্য, গত ২৪ জানুয়ারি সিলেট বিমানবন্দর সড়কে মারাত্নক সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে অনন্যা এখন ঢাকা এপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...

পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরী লিঃ