ওসমানীনগরে তছন মিয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমানিত হয়নি তদন্তে

ওসমানীনগর প্রতিনিধি;
  • প্রকাশিত: ১২ অক্টোবর ২০২০, ১০:৫২ অপরাহ্ণ | আপডেট: ৪ বছর আগে

সিলেটের ওসমানীনগরের গোয়ালাবাজার ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য তছন মিয়ার বিরুদ্ধে চলতি বছরের জুন মাসে এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট লিখিত অভিযোগ দেন। উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম এই অভিযোগের বিষয়টি সরেজমিন তদন্ত করে ২৬ আগস্ট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট একটি তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। তদন্ত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে- ‘সরজমিন তদন্তকালে ইউপি সদস্য তছন মিয়ার বিরুদ্ধে দুর্নীতি বা স্বজনপ্রীতি হয় নাই মর্মে প্রতিয়মান হয়।’

গোয়ালাবাজার ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের সচেতন নাগরিকরা বলেন, ইউপি সদস্য তছন মিয়া করোনা ভাইরাসের পাদুর্ভাবকালে সরকারি ত্রাণ সামগ্রী কর্মহীন ও অসহায় মানুষের মধ্যে সমহারে বন্টন করে তিনি সাধারণ মানুষের প্রশংসা কুঁড়িয়েছেন। তছন মিয়ার সেবামূলক কার্যক্রম দেখে স্থানীয় একটি কুচক্রী মহল প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে তার বিরুদ্ধে উঠে পড়ে লেগেছে। ওই কুচক্রী মহল তছন মিয়ার বিরুদ্ধে সরকারি ত্রাণ বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ দিয়ে ও অপপ্রচার চালিয়ে বর্তমান সরকারের ভাব মুর্তি ক্ষুন্ন করার অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছেন।

এবিষয়ে ইউপি সদস্য তছন মিয়া বলেন, আমার বিরুদ্ধে মনগড়া অভিযোগ প্রদানসহ কাল্পনিক বানোয়াট তথ্যের অপপ্রচারে স্থানীয় প্রশাসনের উন্নয়ন কাজে বাঁধার সৃষ্টি ও বর্তমান সরকারের ভাব মুর্তি ক্ষুন্ন হচ্ছে। অপপ্রচারকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য আমি প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নিকট জোর দাবি জানাচ্ছি।

এব্যপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকতা মোছাঃ তাহমিনা আক্তার বলেন, ইউপি সদস্য তছন মিয়ার বিরুদ্ধে দাখিল করা অভিযোগ তদন্তে প্রমাণিত হয়নি বলে তদন্ত কর্মকর্তা প্রতিবেদন দিয়েছেন।

এদিকে তছন মিয়ার নামে যারা অপপ্রচারে লিপ্ত তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য কিছু দিন আগে ৬নং ওয়ার্ডের ৭২জন নাগরিক স্বাক্ষরিত উপজেলা নির্বাহী কর্মকতার একটি লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছিল।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...

পোর্টাল বাস্তবায়নে : বিডি আইটি ফ্যাক্টরি